গীতায় লেখা আছে যদি জীবনে সুখ চান তাহলে অবশ্যই এই দুটি জিনিস পরিত্যাগ করতে হবে…

0
22273

মহাভারতে কুরুক্ষেত্রের যুদ্ধের সময় পান্ডব কৌরবদের যখন মুখোমুখি সংঘর্ষ শুরু হয়েছিল তখন স্বজন বধের অপরাধের ভয়ে তৃতীয় পান্ডব অর্জুন ভীত হয়ে পড়েছিলেন। তখন ভগবান শ্রীকৃষ্ণ অর্জুনকে বিশ্বরূপ দর্শন করিয়েছিলেন এবং তাঁর ভয়কে জয় করার জন্য কিছু মহামূল্যবান উপদেশ দিয়েছিলেন। সে উপদেশগুলি হল গীতার আসল মর্মবানী। গীতা হল হিন্দুদের প্রধান ধর্মগ্রন্থ।

এটি সারা বিশ্বেরও একটি অন্যতম প্রধান ধর্মগ্রন্থ। এখানে লেখা আছে নানা দার্শনিক কথা। জীবনে কি করা উচিৎ, কি উচিৎ নয়, কীভাবে চললে জীবনের পথ মসৃন হবে ইত্যাদি। মানুষের জীবনের সব সমস্যার সমাধানের কথা লেখা আছে গীতায়।

সেখানে বলা আছে যে জীবনে যদি সুখি হতে চাও তাহলে দুটি জিনিস ত্যাগ করতে হবে। তাহলেই সুখে থাকতে পারবে। দুটি জিনিস হল লোভ এবং ক্রোধ। এই দুটি দোষ যার মধ্যে থাকবে তার পতন অনিবার্য।

লোভঃ লোভ হল মানুষের একটি স্বভাবগত চাহিদা। সেই চাহিদা কখনো খাবারের জন্য, কখনো টাকার জন্য। লোভের জন্য মানুষ কি না করে। আপন জনকে প্রানে মেরে ফেলতেও দ্বিধা বোধ করেনা। মানুষ বেশিরভাগ ভুল ও অপরাধ করে লোভে পড়ে। অনেক ক্ষেত্রে দেখা যায় বিষয় সম্পত্তির জন্য মানুষ তার মা বাবাকে পর্যন্ত হত্যা করছে।

মানুষ যখন একের পর এক জিনিস পেতে শুরু করে তখনই তার লোভ দিনে দিনে বাড়তে থাকে। আর কোন জিনিস না পেলেই সে হয়ে ওঠে হিংসাপরায়ণ। আর তখনই সে নানা রকম অপরাধমূলক কাজ করে বসে। তাই কোন অপরাধ থেকে নিজেকে দূরে রাখতে লোভ ত্যাগ করা উচিৎ।

ক্রোধঃ ক্রোধ একটা মানুষকে মানসিক এবং শারীরিক ভাবে শেষ করে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট। এই রাগের বিভিন্ন রকম প্রভাব পড়ে মানুষের জীবনে। রাগের ফলে মনের উপর চাপ পড়ে। এমনকি রাগের ফলে নষ্ট হয়ে যায় কত আপন সম্পর্ক।

রাগের মাথায় মানুষ মানুষকে এমন কিছু কথা বলে ফেলতে পারে যার ফলে চিরদিনের মতো সম্পর্ক নষ্ট হয়ে যায়। তাই জীবনে সুখ পেতে চাইলে নিজের রাগ নিয়ন্ত্রনে আনুন। কেউ রাগ হওয়ার মতো কোন কথা বললে নিজের মেজাজ ঠান্ডা রেখে তার উপযুক্ত উত্তর দেওয়ার চেষ্টা করুন।

মনে রাখবেন, এই দুটো জিনিস যদি আপনি আপনার জীবন থেকে পরিত্যাগ করেন তাহলে আপনার জীবন হয়ে উঠবে সুখময়। পরিবারে শান্তি বজায় থাকবে, মন ভালো থাকবে, ব্যবসা বৃদ্ধি পাবে ফলে অর্থপ্রাপ্তি ঘটবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here