পর্যাপ্ত সঙ্গমের অভাবে নারীদের যৌ-নঙ্গে ভয়ঙ্কর ক্ষতি হতে পারে, জানলে শিউরে উঠবেন আপনিও…

0
5705

অনেকেরই এই জিনিসটা মনে হয় যে অতিরিক্ত শারীরিক সম্পর্ক আপনার জন্য ক্ষতিকারক। কিন্তু আজ এমন একটি ইনফরমেশন আমরা আপনাদের জানাবো যা শুনলে আপনি ভয় পাবেন বা যা হয়তো আপনার চোখ মাথায় তুলে দিতে পারে। এটি অত্যন্ত সত্য যা প্রমাণিতও হয়েছে। একমাত্র নিয়মিত সঙ্গম করলেই মেয়েরা ভ্যাজা’ইনার বিভিন্ন কঠিন রোগ থেকে দুরে থাকতে পারে।

মেয়েদের ভ্যাজা’ইনার বিভিন্ন কঠিন রোগ যেমন চুলকানি, হাজা, জ্বালাপড়া, সাদাস্রব, অস্বস্তি ভাব ইত্যাদি রোগের একমাত্র ওষুধ হল রেগুলার সে-ক্স। শুধু তাই না বিভিন্ন রকমের যৌ-ন রোগ থেকেও আপনাকে মুক্তি দিতে পারে সঙ্গম।

পর্যাপ্ত সঙ্গমের অভাবে ভ্যাজা’ইনাল এট্রপিতে আক্রন্ত হওয়ার আশঙ্কাও বেড়ে যায়। মেয়েদের যৌ-নঙ্গের ত্বক শক্ত হয়ে শুকিয়ে যায় এবং ভ্যাজা’ইনাল টিসুতে অক্সিজেনের অভাব দেখা যায়। এই রোগটি যে কোন বয়সের নারীদের হতে পারে।

এই রোগের কোন বয়স হয় না। আর তাছাড়া যখন মেনোপজ চলে তখন মেয়েদের শরীরে হরমন উৎপাদন করা হয়ে ওঠে বিশাল কঠিন একটি ব্যাপার। সেটি শরীরের পক্ষে বেশ ক্ষতিকারক একটি ব্যাপার। তাছড়া যারা স্ত’নের ক্যান্সারের জন্য হরমন চিকিৎসা করায় তাদেরও ভ্যাজা’ইনাল এট্রপিতে ভুগতে দেখা গেছে।

এই জিনিসটি কোন নারীর জন্য স্বাভাবিক ব্যাপার নপয়। এই বিষয়টির সম্পর্কে ইংল্যান্ডের একজন নাম করা সে-ক্স স্পেস্যালিস্ট একটি প্রেস কনফারেন্সে বলেছেন – “একটি সুস্থ ও স্বাভাবিক জীবনযাপন করার জন্য একটি সুস্থ ও স্বাভাবিক শারীরিক সম্পর্কের খুবই প্রয়োজন।”

অনেকেরই একটি ভুল ধারনা আছে যে শুধুমাত্র অনুভুতির জন্যই শারীরিক সম্পর্কের প্রয়োজন হয়। কেবলমাত্র শারীরিক সুখের দিকটাই আমরা দেখি। কিন্তু ব্যাপারটা শুধু এই টুকুতেই সিমিত না। শরিরের সঠিক টিসুকে সঠিক সময় সতেজ রাখা একটি বিশাল বড় ব্যাপার।

রক্ত চলাচলটা সঠিকভাবে বজায় রাখা, মাংশ পেশিকে সিথল রাখার জন্য নিয়মিত ভাবে যৌ-ন ক্রিয়াতে লিপ্ত  হওয়াটাও সমান ভাবে প্রয়োজনীয়। কারন মানসিক ভারসাম্য রাখার সাথে সাথে আপনার শারীরিক ভারসাম্যের দিকেও খেয়ালটা রাখা উচিত।

একমাত্র তাহলেই আপনি একটা সুস্থ ও স্বাভাবিক জীবন জাপনে লিপ্ত হতে পারবেন। তাই মনের খুশিতে সঙ্গমে লিপ্ত হন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here