স্বামীকে সারপ্রাইজ দেওয়ার জন্য স্ত্রী এমন পোশাক পরলেন, সাপ ভেবে এক কোপে কেটে দিলেন স্ত্রীর পা…

0
28982

বর্তমান ফ্যাশনের যুগে কে যে কি ফ্যাশন করে তার কোন ঠিক নেই, মানুষ যাই করুক তাই ফ্যাশন হয়ে যায়। কেউ যদি উদ্ভট কোন পোশাক পরে, সেটাই ফ্যাশনের আকার নেয়। পোশাক পরাতে কারোর কোন বাধা নেই। আমরা অদ্ভুত পোশাক পরার জন্য অনেককেই অপ্রস্তুত হতে দেখেছি, কিন্তু আজ আপনাদের এমন একটি ঘটনা জানাবো যা জানলে আপনি অবাক হবেন।

ঘটনাটি ঘটেছে অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্ন শহরে। এই শহরেই বাস করতেন এক নব দম্পতি। বেশিদিন হয়নি তাদের বিয়ের। আর নতুন বিয়ে হয়েছে বলে তাদের মধ্যে রোম্যান্সও অনেক বেশি। একদিন স্ত্রী তার স্বামীকে রাত্রে সারপ্রাইজ দেওয়ার মুডে ছিলেন।

তাই সে আগেই শুয়ে পরেছিলেন বিছানায়। তিনি চাদর চাপা দিয়ে শুয়েছিলেন, কিন্তু তার পা দুটি বাইরে বেরিয়ে ছিল। সেখানেই হল যত বিপদের সূত্রপাত। আসলে স্ত্রী পায়ে এমন একটি স্টোকিংস পরেছিলেন যে তার স্বামী দেখার সঙ্গে সঙ্গে ভেবেছিলেন সেটি কোন বিষাক্ত ভয়ঙ্কর সাপ।

তারপর সেই সাপটিকে মারার জন্য বেসবলের ব্যাট নিয়ে তার ওপর খুব জোড়ে আঘাত করেন। মারার পর তিনি বুঝতে পারেন যে সেটা কোন সাপ নয়, তার স্ত্রীর পা। সব বুঝে ওঠার আগে তার স্ত্রী গুরুতর জখম হয়েছিলো। তারপর জানা যায় সেই মহিলা স্বামীকে সারপ্রাইজ দেওয়ার জন্যই ওইরকম অদ্ভুত একটি স্টোকিংস পরেছিলেন।

আর স্বমী এমন সারপ্রাইজ হলেন যে স্ত্রীর পা মেরে ভেঙ্গেই দিলেন। এখানে ভালো ভাবে দেখতে গেলে দোষ কারোর নয়। পুরো ঘটনা ঘটেছিল অজান্তে। তার স্ত্রী যে এমন অদ্ভুত পোশাক পড়ে শুয়ে থাকবেন তা কল্পনাও করতে পারেন নি।

তিনি ভাবতেই পারেননি তার স্ত্রী সারা শরীর চাদরে ঢেকে শুধু দুটি পা বাইরে বার করে রেখে দেবেন। অগত্যা সে কি করবে ভেবে না পেয়ে স্ত্রীকে নিয়ে হাসপাতালে ছুটে যান। সেখনে গিয়ে শুরু হয় তার চিকিৎসা। চিকিৎসক জানান যে তার স্ত্রীর একটি পা ভেঙ্গে গেছে এবং অপর একটি পা গুরুতর ভাবে জখম হয়েছে।

আপনারা দেখুন সেই ভাইরাল ছবি। এই ধরনের পোশাক পড়লে যে কেউ ধোঁকা খেতে বাধ্য। তাই সবার জন্য একটাই পরামর্শ, যেরকমই পোশাক পড়ুন না কেন এমন কোন পোশাক পরবেন না যাতে আপনি নিজেই বিপদে পরেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here