ইন্দিরা গান্ধির মৃত্যুর ভবিষ্যৎবাণী করা জ্যোতিষাচার্য এবার করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভবিষ্যৎবানী…

0
49517

২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচন আর বেশি দেরি নেই তা রাজনৈতিক দলের তৎপরতা দেখে কিছুটা আন্দাজ করা যাচ্ছে। প্রতিটি দল তাদের নিজেদের প্রচারে নেমে পরেছেন রাস্তায়। বিজেপি এতদিন ধরে জনসাধারারনের জন্য যা যা উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন সেগুলি একে একে মনে করানোর সময় এসে গেছে। অন্যদিকে আবার কংগ্রেস নিজেদের হিন্দু প্রমান করার জন্য তৎপর হয়ে উঠেছে।

এই বছর লোকসভা নির্বাচনে আসল লড়াই হতে চলেছে কংগ্রেস ও বিজেপির মধ্যে। তাই এখন কংগ্রেস বাকি দলের সঙ্গে জোট বাঁধা শুরু করেছে। কিন্তু কি হবে এর ফলাফল ? ভোটের ফল না বেরনো পর্যন্ত কিছু বলা যায়না। সাধারণ মানুষ যাকে বেছে নেবে সেই জিতবে এই ভোটে।

কিন্তু এক জ্যোতিষী আছেন যার সমস্ত কিছু নখদর্পনে। তিনি যা ভবিষ্যৎবানী করেন তা হুবহু মিলে যায়। এর আগে তিনি যতবার ভবিষ্যৎবানী করেছেন সবার ক্ষেত্রে তা সত্যি হয়েছে। তার নাম হল জ্যোতিষাচার্য হরিদয়াল মিশ্র। অবিশ্বাস্য মনে হলেও এটাই সত্যি।

ইনি এর আগে ইন্দিরা গান্ধী এবং সঞ্জয় গান্ধীর মৃত্যুর ভবিষ্যৎবানী করেছিলেন। তার বলা সব কথা মিলে গেছে। এনাদের মৃত্যুর পর সেই জ্যোতিষ হরিদয়াল মিশ্রকে সি.বি.আই. এর প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়। তাদের প্রশ্ন ছিল এই যে তিনি কীভাবে জেনেছিলেন যে তাদের মৃত্যু হবে।

এই বিষয়টি নিয়ে অনেক জল ঘোলা হয়েছিলো। পুলিশ সন্দেহ করেছিলো যে ইন্দিরা গান্ধী এবং সঞ্জয় গান্ধীর মৃত্যুর পিছনে তারই হাত আছে। তিনিই লোক লাগিয়ে তাদের খুন করিয়েছেন। নাহলে কোন মানুষের পক্ষে বলা সম্ভব নয় কার কবে কীভাবে মৃত্যু হবে।

এবার তিনি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভবিষ্যৎবানী করেন। তিনি বলেন এবার নরেন্দ্র মোদি দীর্ঘ দিন ধরে দেশের সেবা করতে পারবেন। এরপর তিনি রাহুল গান্ধী সম্পর্কে বলেন তার সময় খুব খারাপ যাচ্ছে। তার পূর্ব পুরুষের কিছু কুকর্মের শাস্তি তাকে পেতে হচ্ছে।

আর সেই খারাপ প্রভাব সহজে কাটবেনা। তিনি আরো অনেক রাজনীতিবিদদের নিয়ে অনেক কথাই বলেছেন, তাই তিনি সাংবাদিকদের কাছে খুব প্রিয় একজন ব্যাক্তি। তার ভবিষ্যৎবানীর পর মনে করা হচ্ছে যে নরেন্দ্র মোদি আগামী দশ বছর পর্যন্ত ভারতের প্রধানমন্ত্রী থাকবেন। আর দেশের মানুষের সেবা করে যাবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here