রাতে ভাত না খেয়ে রুটি খান ? তাহলে এটি অবশ্যই পড়ুন নাহলে পস্তাবেন…

0
7872

দৈনন্দিন জীবনে আমাদের খাদ্য তালিকায় রুটি হল এক অতি প্রয়োজনীয় খাদ্য। উত্তরপ্রদেশ, পাঞ্জাব, হারিয়ানা প্রভৃতি জায়গায় ভাতের থেকে রুটিকে বেশি প্রাধান্য দেওয়া হয়। বর্তমানে বাঙ্গালিরাও রুটি খেতে পছন্দ করে। আমরা সারাদিনে একবার ভাত খাই আর বাকি সময় রুটি বা অন্য কিছু খেতেই বেশী পছন্দ করি। বিশেষ করে রাতে সকলেই ভাতের বদলে রুটি খেয়ে থাকি।

রাতে যদি গরম রুটির সাথে তরকা বা মাংস থাকে তাহলে তো কোন কথাই নেই। কিন্তু আপনারা যারা রুটি খেতে বেশি পছন্দ করেন তারা কি জানের এর উপকারিতা বা অপকারিতা সম্বন্ধে ? জানেন শরীরে এর কতটা প্রভাব পরে ? যদি না জেনে থাকেন তাহলে জেনে নিন এক্ষুনি।

আমরা শরীরের পুষ্টির জন্য রোজ ভাত ও রুটি খেয়ে থাকি। রুটি খুব পুস্টিকর খাদ্য। রুটি তৈরি হয় আটা থেকে আর আটা আসে গম থেকে। গমের তৈরি রুটি খেলে হার্টের অনেক সমস্যা দূর হয়। রুটিতে আছে এমন কিছু পুস্টিকর উপাদান যা হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়।

এছাড়াও রুটি শরীরের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করে। শরীর ফিট রাখে। রুটিতে কোন ফ্যাট থাকেনা তাই শরীর ফিট থাকে। রাতে রুটি খেলে শরীরের কি কি উপকার হয় তা সম্পর্কে জানুন…

১। ক্যালরির পরিমান ঃ- রুটিতে ক্যালরির পরিমান খুব কম থাকে, সেই কারনে রুটি খেলে ওজন বৃদ্ধি হয় না। যদি নিজের ওজন বৃদ্ধি না করতে চান তাহলে রাতে অবশ্যই রুটি খান।

২। চর্বির আধিক্য ঃ- রুটিতে যেহেতু ফ্যাট থাকেনা সেহেতু রুটি খেলে শরীরে চর্বিড় আধিক্য হওয়ার সম্ভাবনা নেই। আর যাদের বেশি চর্বি তারা যদি প্রতিদিন রুটি খাওয়া শুরু করে তাহলে চর্বি কমে যাবে।

৩। সুগারের মাত্রা ঃ- রুটিতে থাকে গ্লাইসেমিক ইন্ডেক্স নামক উপাদান যা রক্তে সুগারের মাত্রা ঠিক রাখে। ডায়বেটিস রুগীদের জন্য এই খাদ্য খুব উপকারী।

৪। ভিটামিন ও খনিজ ঃ- শরীরের গঠনে বা শরীর সুস্থ রাখার জন্য যে সব খনিজের দরকার হয় তা সবই থাকে রুটিতে। তাই রুটি খাওয়া শরীরের জন্য খুব উপকারী।

৫। হজম ক্ষমতা ঃ- রুটিতে থাকে ফাইবার নামক এক উপাদান যা আমাদের হজম ক্ষমতা বারিয়ে দেয়। ফলে গ্যাস, অম্বল, বুক জ্বালার মতো সমস্যা দূর হয়।

৬। মারাত্মক রোগের আসঙ্খা ঃ- রুটি খেলে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রনে থাকে ফলে হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক এর মতো নানারকম রোগ থেকে বাঁচায়। আপনি যদি রাতে ভাত খেতেই অভ্যস্ত হন তাহলে আর দেরি না করে আজই বদলে ফেলুন নিজের ডায়েট।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here